মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সিরিয়ার সঙ্গে জর্ডনের সীমান্তে একদল সেনা পাঠিয়েছে, যাতে সিরিয়ার সঙ্কট আরও গুরুতর হওয়ার কারণে জর্ডনের যুদ্ধ করার ক্ষমতা বাড়ে. এই বিষয়ে বুধবারে এক সাংবাদিক সম্মেলনে ব্রাসেলস শহরে পেন্টাগনের প্রধান লিওন প্যানেত্তা ঘোষণা করেছেন. তাঁর কথামতো, ওয়াশিংটন জর্ডনের সঙ্গে সেই কারণেই সহযোগিতা করছে, যাতে সিরিয়ার রাসায়নিক ও জৈব সামরিক অস্ত্র সংক্রান্ত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করা যায়, আর তারই সঙ্গে সিরিয়া থেকে এই দেশে আসা উদ্বাস্তুদের উপরে নজর রাখার জন্য. এর আগে আমেরিকার সংবাদপত্র “নিউইয়র্ক টাইমস” এক নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক উত্স থেকে পাওয়া খবর হিসাবে জানিয়েছিল যে, আমেরিকা ১৫০ জন সামরিক বিশেষজ্ঞ গোপন ভাবে জর্ডনে পাঠিয়েছে. তারই মধ্যে জর্ডনের সামরিক বাহিনীর কর্তারা অস্বীকার করেছেন যে, তাঁদের দেশে গোপন ভাবে মার্কিন সেনা দলের বিশেষ বাহিনী পাঠানো হয়েছে.