0২০৪২ সাল অবধি তাজিকিস্তানে রাশিয়ার সামরিক ঘাঁটি থাকা এই অঞ্চলে দুই দেশের নিরাপত্তা ও স্ট্র্যাটেজিক স্বার্থের পক্ষেই অনুকূল. এই প্রসঙ্গে তাজিকিস্তানে দেশের নেতা এমোমালি রাখমোনের সঙ্গে আলোচনার ফলাফল নিয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে বলেছেন রুশ রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন. মস্কো ও দুশানবে রাশিয়ার সামরিক ঘাঁটির সেই দেশে থাকার মেয়াদ বৃদ্ধি নিয়ে চুক্তি স্বাক্ষর করেছে. উপযুক্ত এক চুক্তি এই সম্বন্ধে স্বাক্ষরিত হয়েছে শুক্রবারে দুই রাষ্ট্রপতির আলোচনার শেষে. পুতিন বিশেষ করে উল্লেখ করেছেন যে, রাশিয়ার সামরিক ঘাঁটির উপস্থিতি খুবই ভরসাযোগ্য ভাবে সম্মিলিত স্ট্র্যাটেজিক স্বার্থকেই রক্ষা করবে, নিরাপত্তা মজবুত করবে ও সমগ্র মধ্য এশিয়া অঞ্চলে পরিস্থিতিকে স্থিতিশীল করবে. এর আগে রাশিয়ার রাষ্ট্র প্রধানের সহকারী ইউরি উশাকভ জানিয়েছেন যে, এই চুক্তির মেয়াদ ৩০ বছর – ২০৪২ সাল পর্যন্ত ও তারপরে প্রতি পাঁচ বছরে বাড়ানো যাবে. এই চুক্তি তৈরী করা হয়েছে বর্তমানে থাকা চুক্তির পরিবর্তে, যেটির মেয়াদ শেষ হতে চলেছে ২০১৪ সালে. এর আগের চুক্তি ১৯৯৩ সালের ২৫শে মে স্বাক্ষরিত হয়েছিল.