0রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ভ্লাদিমির পুতিন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আন্তর্জাতিক বিকাশ সংক্রান্ত এজেন্সির (USAID) কার্যকলাপের মূল্যায়নের সাথে একমত, যা আগে জানিয়েছিল রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়. এ সম্বন্ধে বৃহস্পতিবার লিখেছে রাশিয়ার ভেদোমস্তি সংবাদপত্র. রাষ্ট্রপতির প্রেস-সেক্রেটারি দমিত্রি পেস্কোভের উদ্ধৃতি দিয়ে পত্রিকাটি লিখেছে, রাষ্ট্রপতির মতামতও অনুরূপ.বুধবার প্রচারিত মন্তব্যে রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি আলেক্সান্দর লুকাশেভিচ বলেন যে, মার্কিনী আন্তর্জাতিক বিকাশ সংক্রান্ত এজেন্সি রাশিয়ায় রাজনৈতিক প্রক্রিয়া প্রভাবিত করার চেষ্টা করেছিল. তিনি বলেন, “কথা হচ্ছে বিভিন্ন গ্র্যান্ট বণ্টনের মাধ্যমে রাজনৈতিক প্রক্রিয়া প্রভাবিত করার চেষ্টার, সেই সঙ্গে বিভিন্ন পর্যায়ের নির্বাচনে, এবং নাগরিক সমাজের সংস্থাগুলিকে”. লুকাশেভিচ জোর দিয়ে বলেন যে, সিরিয়াস সব প্রশ্নে এ এজেন্সির সক্রিয়তা দেখা গেছে, বিশেষ করে উত্তর ককেশাসে. রাশিয়ায় এ এজেন্সির শাখাগুলি কাজ বন্ধ করবে ১লা অক্টোবর থেকে, কারণ রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মূল্যায়ন অনুযায়ী, রাশিয়ায় তার প্রতিনিধিদের কাজ দ্বিপাক্ষিক মানবতাবাদী সহযোগিতা বিকাশে সহায়তার কাঠামো অতিক্রম করে গেছে. মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আন্তর্জাতিক বিকাশ সংক্রান্ত এজেন্সি – মার্কিনী ফেডারেল সরকারের স্বাধীন এজেন্সি, যা অন্যান্য দেশকে অ-সামরিক সাহায্য দান নিয়ে কাজ করে. এজেন্সি গণতন্ত্রের বিকাশ এবং মানব অধিকার রক্ষার বিষয় নিয়ে কাজ করছে, আর তাছাড়া স্বাস্থ্যরক্ষা, শিক্ষা, প্রতিবেশ এবং অর্থনৈতিক বিকাশ নিয়ে কাজ করে. রাশিয়ায় ে এজেন্সি কাজ শুরু করে ১৯৯২ সালে. এ এজেন্সি মস্কোর হেলসিঙ্কি গ্রুপ নামে মানব অধিকার রক্ষা সংস্থা এবং “গোলস” (কণ্ঠস্বর) সমিতির ডোনারদের তালিকার অন্তর্ভুক্ত.