সরকারী দূরদর্শন চ্যানেলকে দেওয়া সাক্ষাত্কারে ইক্যুয়াডরের রাষ্ট্রপতি উল্লেখ করেছেন – আমরা সানন্দে জানাচ্ছি, যে বৃটেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রক আমাদের লন্ডনের দূতাবাসে কোনো হামলা করার পরিকল্পনা থেকে বিরত থাকার আশ্বাস দিয়েছেন. কোরেয়ার মতে শুধুমাত্র ২টি পথ আছে সমস্যা সমাধানেরঃ হয় লন্ডন অবাধে WikiLeaks এর প্রতিষ্ঠাতাকে ইক্যুয়াডরে যাওয়ার সুযোগ দেবে, অথবা যদি সুইডেনের হাতে তাকে অর্পণ করা হয়, তাহলে গ্যারান্টি চাই, যে তারা অন্য কোনো তৃতীয় দেশের হাতে অ্যাসেঞ্জকে তুলে দেবে না.