আফগানিস্তানের রাষ্ট্রপতি হামিদ কার্জাই এবং পাকিস্তানের রাষ্ট্রপতি আসিফ আলি জারদারী দু দেশের সীমান্ত অঞ্চলে সামরিক কর্মীদের উপর আক্রমণের ঘটনা মিলিতভাবে তদন্তের জন্য কমিশন গঠনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছেন. কা৪জাইয়ের দপ্তরে ব্যাখ্যা করে বলা হয়েছে যে, এ সমঝোতা অর্জিত হয়েছে সৌদি আরবে ইস্লামিক সহযোগিতা সংস্থার শীর্ষ সম্মেলনের সময় সাক্ষাতে. দু দেশের নেতারা একমত প্রকাশ করেন যে, উভয় পক্ষেরই হিংসা এড়ানো এবং অঞ্চলে শান্তি ও স্থিতিশীলতা অর্জনের জন্য ঐক্যবদ্ধ হওয়া উচিত. উভয় দেশের সৈনিকদের উপর পাক-আফগান সীমান্ত অঞ্চলে প্রায়ই গুলি-বর্ষণ হয়. কাবুলে মনে করা হয় যে, প্রায়ই আফগান সৈনিকদের উপর গুলি বর্ষণ করে পাকিস্তানী সৈনিকরা. ইসলামাবাদে মনে করা হয় যে, এমন অভিযোগ ভিত্তিহীন এবং উল্লেখ করা হয় যে, আগে আফগানিস্তানে পালানো পাকিস্তানী তালিবরা সম্প্রতিকালে প্রায়ই দেশে ফিরে আসছে এবং পাকিস্তানী সৈনিকদের উপর আক্রমণ চালাচ্ছে.