0জেলেদের নৌকোর উপর গুলি বর্ষণের ঘটনার তদন্তের গতিতে জানা যায় যে, মার্কিনী যুদ্ধজাহাজ গুলি বর্ষণ করেছিল কোনো হুঁশিয়ারী না দিয়েই. আগে মার্কিনী পক্ষ নিশ্চয়োক্তি করেছিল যে, নৌকোর উপর মেশিনগানের গুলি বর্ষণ করা হয়েছিল শুধু তখনই, যখন সমস্ত হুঁশিয়ারী হেয় করে জেলেরা মার্কিনী নৌবাহিনীর যুদ্ধজাহাজের খুব কাছে আসতে থাকে. এই গুলি বর্ষণের ফলে একজন ভারতীয় জেলে নিহত হয়, এবং আরও তিনজন গুরুতরভাবে আহত হয়. সংযুক্ত আরব এমীরতন্ত্রে ভারতের রাষ্ট্রদূত শ্রী এম.কে. লোকেশ জানান যে, বেঁচে থাকা একজন জেলে তাঁকে বলেছে যে, মার্কিনী যুদ্ধজাহাজ থেকে কোনো হুঁশিয়ারী দেওয়া হয় নি. আর দুবাই-এর পুলিশ বিভাগের অধিকর্তা লেফটেনেন্ট জেনারেল দাহি খালফান তামিম “এ.পি.” সংবাদ এজেন্সিকে জানিয়েছেন যে, তদন্তের গতিতে স্পষ্ট হয়ে ওঠে যে, জেলেদের নৌকো সঠিক যাত্রাপথেই যাচ্ছিল এবং মার্কিনী নৌবাহিনীর জাহাজের জন্য কোনো বিপদ সৃষ্টি করছিল না.