রাশিয়ার বিভিন্ন বিভাগ সিরিয়া থেকে রাশিয়ার নাগরিক এবং সামরিক কর্মীদের অপসারণের জন্য প্রস্তুতি শুরু করেছে. সিরিয়ায় কর্তৃপক্ষ ও সশস্ত্র বিরোধীপক্ষের মাঝে সঙ্ঘর্ষ তীব্র হয়ে ওঠা অথবা বিদেশী সামরিক হস্তক্ষেপের ক্ষেত্রের জন্য এই অপসারণের ব্যবস্থা করা হচ্ছে. এ সম্বন্ধে বৃহস্পতিবার লিখেছে রাশিয়ার “ভেদোমস্তি” পত্রিকা. পত্রিকাটির উত্স জানিয়েছেন যে, সর্বপ্রথমে অপসারণ করা হবে রাশিয়ার নাগরিকদের এবং সিরিয়ার তারতুস বন্দরে রাশিয়ার নৌবাহিনীর রসদ ও প্রযুক্তিগত সুনিশ্চিতি কেন্দ্রের সামরিক কর্মীদের. সেই সঙ্গে, আগামী কয়েক দিনের মধ্যে রাশিয়ার জাহাজ পাঠানোর নির্দেশ এখনও নেই. পত্রিকার এক সংলাপী উল্লেখ করেন, তাই সিরিয়ায় শিগগিরই অবতরণ বাহিনী সম্বলিত সুনির্দিষ্ট জাহাজ পাঠানোর পরিকল্পনার অস্তিত্বের খবর রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় ন্যায়সঙ্গতভাবেই খণ্ডন করেছে. এ সব জাহাজ সিরিয়ায় যাত্রার জন্য প্রস্তুত হচ্ছে এ খবর পেন্টাগনের উত্সকে উদ্ধৃত করে আগে জানিয়েছিল “সি.এন.এন” সংবাদ সংস্থা, সঠিক করে জানিয়েছে পত্রিকাটি. রাশিয়ার “ভেদোমস্তি” পত্রিকার সংলাপীর তথ্য অনুযায়ী, প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় ছাড়া, রাশিয়ার নাগরিকদের অপসারণের সুনির্দিষ্ট পরিকল্পনা প্রস্তুত করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বিপর্যয় নিরসন মন্ত্রণালয় এবং অন্যান্য বিভাগকে. তবে, বিপর্যয় নিরসন মন্ত্রণালয় এবং প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে এ বিষয়ে সরকারী মন্তব্য পাওয়া সম্ভব হয় নি. রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, বর্তমানে সিরিয়াতে সপরিবারে বাস করছে প্রায় এক লক্ষ রাশিয়ার নাগরিক.