চীন মনে করে যে, ইরানের পারমাণবিক সমস্যার ব্যাপারে সহনশক্তি ও নমনীয়তা প্রকাশ করা উচিত, আলাপ-আলোচনা চালিয়ে যাওয়ার সাধারণ নীতি বজায় রেখে. এ সম্বন্ধে বুধবার বেজিংযে এক ব্রিফিংয়ে বলেছেন চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি হুন লেই, মস্কোয় সদ্য শেষ হওয়া আন্তর্জাতিক মধ্যস্থ “ছয় দেশ” ও ইরানের মাঝে আলাপ-আলোচনার পরবর্তী রাউন্ড সম্বন্ধে মন্তব্য করে. বেজিং মনে করে যে, ইরানের পারমাণবিক সমস্যা মীমাংসার একমাত্র ফলপ্রসূ পথ হল সংলাপ, জোর দিয়ে বলেন চীনা কূটনীতিজ্ঞ. তাঁর কথায়, আলাপ-আলোচনার অংশগ্রহণকারীদের নিজেদের দৃষ্টিভঙ্গীতে “নমনীয়তা ও বাস্তববাদিতা” প্রকট করা উচিত্ এবং “বিভিন্ন পক্ষের উদ্বেগ বিবেচনা করা” উচিত্. তাছাড়া, চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি সিরিয়ার ভূভাগে রাশিয়া ও ইরানের সাথে একত্রে সামরিক মহড়া চালানো সম্পর্কে প্রচার মাধ্যমের খবর খণ্ডন করেছেন. আগে ইরানের প্রচার মাধ্যমে এ খবর দেখা দিয়েছিল যে, আগামী কয়েক সপ্তাহে সিরিয়ার ভূভাগে চীন, রাশিয়া ও ইরানের মিলিত সামরিক মহড়া চালানোর কথা.