মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র মনে করছে যে, সিরিয়ার সমস্যার সবচেয়ে সম্ভাব্য সমাধান হবে সিরিয়ায় জাতিসংঘের বিশেষ প্রতিনিধি কোফি আন্নানের পরিকল্পনার বাইরে. এই বিষয়ে নিউ-ইয়র্কে জানিয়েছেন জাতিসংঘে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের স্থায়ী প্রতিনিধি সিউজান রাইস. তাঁর ভাষায়, সিরিয়ায় আন্নানের পরিকল্পনা আর ডামাস্কাসের উপর বাধা-নিষেধ কোনো ফল পাওয়া না গেলেই, সবচেয়ে খারাপ বিকল্প ব্যবহার করা হবে. “ইন্টের্ফাক্স” সংবাদ সংস্থা জানিয়েছে, তিনি স্পষ্ট করে বলেন নি যে, তার মানে সিরিয়ার অভ্যন্তরীণ ব্যাপারে বিদেশী হস্তক্ষেপ করা হবে. কিন্তু তিনি উল্লেখ করেছেন যে, সিরিয়ায় হিংস আরও বাড়লে, “সংঘর্ষ তীব্রতর আর আন্তর্জাতিক রুপ ধারণ করবে”. ওয়াশিংটন জানে যে, তার ফলে শুধু সিরিয়ায় নয়, সারা অঞ্চলে সঙ্কট দেখা দেবে. তবে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদকে আর বাকি সদস্যদের সিদ্ধান্ত নিতে হয়, তারা আন্নানের পরিকল্পনার আর জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের ক্ষমতার  বাইরে আসতে প্রস্তুত কি না. জাতিসংঘে রাশিয়ার স্থায়ী প্রতিনিধি ভিতালি চুর্কিন এ বিষয়ে বলেছেন, “দুর্যোগ এড়ানোর শ্রেষ্ঠ পথ হবে কোফি আন্নানের পরিকল্পনা বাস্তবায়িত করার চেষ্টা, আর এই প্রচেষ্টা সবাইকে করতে হবে”, নয়তো, তাঁর কথায়, সারা অঞ্চলের জন্য ভার নেতিবাচক ফলাফল দেখা দেবে.