মঙ্গলবারে তুরস্ক থেকে ভাড়া করা সৈন্য ঢোকানোর চেষ্টা করা হয়েছিল উত্তর পশ্চিমের ইডলিব প্রদেশের দেরকুশ শহরের কাছে. “সুরিয়া” টেলিভিশন চ্যানেল জানিয়েছে যে, যুদ্ধে কিছু জঙ্গী নিহত হয়েছে আর বেশ কিছু অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে, যা দেশের ভিতরের জঙ্গীদের জন্য পাঠানো হচ্ছিল. স্বাধীন “আল- ওয়তন” সংবাদপত্র সিরিয়ার পররাষ্ট্র দপ্তরের উপপ্রধান ফৈসাল মেকদাদের ঘোষণা উল্লেখ করেছে, যেখানে দামাস্কাসের পক্ষ থেকে রাষ্ট্র সঙ্ঘ ও আরব লীগের বিশেষ প্রতিনিধি কোফি আন্নানের শান্তি পরিকল্পনা বাস্তবায়নের প্রতি নিরত থাকার কথাই বলা হয়েছে. কূটনীতি বিদ জানিয়েছেন যে, সিরিয়ার প্রশাসন আন্তর্জাতিক পর্যবেক্ষক দল কে “অভূতপূর্ব” দায়িত্ব ও সম্ভাবনা দিয়েছে, যাতে তারা বাস্তব সম্মত রিপোর্ট তৈরী করতে পারে, স্থির করতে পারে, কারা দেশে হিংসার পিছনে রয়েছে. বিশেষ করে মনোযোগ পর্যবেক্ষকদের রয়েছে হামা শহরে, যেখানে “আল – ওয়তন” সংবাদপত্রের সাক্ষ্য অনুযায়ী বিগত কয়েক দিনে জঙ্গীরা খুবই সক্রিয় হয়ে উঠেছে.