দেশের দক্ষিণে ফৌজ অন্তত ২৩ জন “আল- কায়দা” গোষ্ঠীর যোদ্ধা সহ ৩২ জন জঙ্গীকে ধ্বংস করতে সক্ষম হয়েছে বলে সাংবাদিকদের স্থানীয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে. ইয়েমেনের সরকারের তরফ থেকে এই বিশেষ অপারেশন করা হয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তায়. আমেরিকার ড্রোন বিমান এখন বেশী করেই জঙ্গীদের ঘাঁটিতে হামলা করছে. ফেব্রুয়ারি মাস থেকেই এই কাজ চলছে, যখন থেকে রাষ্ট্রপতির পদে আসীন হয়েছেন আবদুরাব্বি মানসুর হাদি. ইয়েমেনের দক্ষিণে “আরব উপদ্বীপ অঞ্চলের আল- কায়দা” দলের লোকরা কাজ করছে, যারা এই দেশে গত বছরের মে মাসে প্রশাসনের দুর্বলতা তৈরী হওয়ার পর থেকেই সক্রিয় হয়েছে. এই ধরনের জঙ্গীদের কাজে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও প্রতিবেশী সৌদি আরব খুবই উদ্বিগ্ন, যারা খনিজ তেলের এক বড় রপ্তানী কারক দেশও বটে.