সন্ত্রাসবাদী সংস্থা “আল-কাইদা” সিরিয়ায় পরিস্থিতি জটিল করে তুলতে চেষ্টা করছে, স্বীকার করেছেন মার্কিনী পররাষ্ট্র বিভাগের প্রতিনিধি মার্ক টোনার. ওয়াশিংটনে এক ব্রিফিংয়ে তিনি বলেন যে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র খুবই উদ্বিগ্ন যে, সন্ত্রাসবাদী সংস্থাগুলি, বিশেষ করে “আল-কাইদা”, এ দেশের পরিস্থিতি নিজস্ব উদ্দেশ্যে ব্যবহার করার চেষ্টা করছে. তবুও, টোনার উল্লেখ করেন যে, ওয়াশিংটন আগের মতোই সিরিয়ার সরকারের কাছে দাবি করছে সঙ্ঘর্ষের এলাকা থেকে সৈন্যবাহিনী অপসারণ করার এবং সিরিয়া সম্পর্কে রাষ্ট্রসঙ্ঘ ও আরব রাষ্ট্র লীগের বিশেষ প্রতিনিধি কোফি আননের পরিকল্পনা পুরণ করে যাওয়ার. আগে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রশাসন সিরিয়ায় অস্থিতিশীলতার জন্য দায়িত্ব আরোপ করেছিল শুধু দেশের রাষ্ট্রপতি বাশার আসদের উপরে. এদিকে, বিগত কয়েক দিন ধরে সিরিয়ায় একসারি সন্ত্রাস ঘটেছে. দামাস্কাসে ২৭শে এপ্রিল সন্ত্রাসের পরপরই, অর্থাত্ তিন দিন পরে দেশের উত্তরাঞ্চলে ইদলিব শহরে বিস্ফোরিত হয় দুটি বিস্ফোরক বস্তু ভরা মোটরগাড়ি. নিহত হয় নয় জন, আরও বেশ কিছু শান্তিপূর্ণ নাগরিক আহত হয়, আশপাশের বসত-বাড়িগুলির গুরুতর ক্ষতি হয়. সিরিয়ায় এক বছরের উপর সরকারবিরোধী প্রতিবাদ আন্দোলন চলছে. রাষ্ট্রসঙ্ঘের তথ্য অনুযায়ী, সিরিয়ায় নিহতদের সংখ্যা ৯ হাজার ছাড়িয়ে গেছে.