ইরানের বিরুদ্ধে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নতুন নিষেধাজ্ঞা আন্তর্জাতিক মধ্যস্থ “ছয় দেশের” সাথে পারমাণবিক কর্মসূচি নিয়ে আলাপ-আলোচনায় নঙর্থক প্রভাব ফেলতে পারে. এ সম্বন্ধে বলা হয়েছে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে. সোমবার মার্কিন রাষ্ট্রপতি বারাক ওবামা ইরান ও সিরিয়ায় পৃথক পৃথক ব্যক্তি, কোম্পানি এবং কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে অতিরিক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ অনুমোদন করেছে, যারা নাগরিকদের দমনের জন্য নতুন নতুন প্রকৌশল এবং ইন্টারনেট ব্যবহার করছে. আশা করা হচ্ছে যে, ইরানের পারমাণবিক কর্মসূচি নিয়ে তেহেরান ও আন্তর্জাতিক মধ্যস্থ “ছয় দেশের” (রাষ্ট্রসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদের স্থায়ী সদস্য পাঁচটি দেশ এবং জার্মানির) আলাপ-আলোচনার পরবর্তী রাউন্ড বাগদাদে ২৩শে মে অনুষ্ঠিত হবে.