0সিরিয়ার কর্তৃপক্ষ নিশ্চয়োক্তি করেছে যে, ৭৪টি প্রচার মাধ্যমের সাংবাদিকদের দেশে আসার অনুমতি দিয়েছে, শুক্রবার জেনেভায় বলেছেন রাষ্ট্রসঙ্ঘ ও আরব রাষ্ট্র লীগের বিশেষ প্রতিনিধি কোফি আননের প্রতিনিধি আহমদ ফৌজি. দেশে বিদেশী সাংবাদিক, পর্যবেক্ষক এবং মানবতাবাদী সংস্থার কর্মীদের আসতে দেওয়া সিরিয়া মীমাংসা সংক্রান্ত আননের পরিকল্পনার একটি মুখ্য ধারা. আগামী কয়েক দিনের মধ্যে সিরিয়ায় পাঠানো হতে পারে রাষ্ট্রসঙ্ঘের পর্যবেক্ষকদের একটি দল, যাতে বেশ কিছু লোক থাকতে পারে. অনুকূল পরিস্থিতির ক্ষেত্রে এ দেশে পাঠানো যেতে পারে ২৫০ জনকে, উল্লেখ করেন ফৌজি. তিনি ব্যাখ্যা করে বলেন যে, এখনও ঠিক হয় নি, কোন কোন দেশের প্রতিনিধি পর্যবেক্ষক মিশনের অন্তর্ভুক্ত হবে. তবে, তিনি জোর দিয়ে বলেন যে, কথা হচ্ছে, “যে দেশে কাজ করতে হবে, সে দেশের জন্য গ্রহণযোগ্য দেশের নাগরিকদের সম্বন্ধে”. অনুকূল পরিস্থিতিতে পর্যবেক্ষকদের প্রথম দল সিরিয়ায় পৌঁছোতে পারে আগামী সপ্তাহে. এদিকে, পশ্চিমী প্রচার মাধ্যমের খবর অনুযায়ী, সিরিয়ার বিরোধীপক্ষ শুক্রবার মিছিলে বের হয়েছিল, যাতে কার্যক্ষেত্রে পরীক্ষা করা যায় কর্তৃপক্ষ অগ্নি সংবরণ পালন করছে কি না.মিছিল হচ্ছে রাজধানীর কাদাম পাড়ায়, এবং তাছাড়া দামাস্কাসের উপকণ্ঠে ইরবিন শহরে. স্থানীয় সঙ্গতি সাধন কমিটির খবর অনুযায়ী, মিছিল তাছাড়া হচ্ছে সিরিয়ার পূর্বাঞ্চলে ডেইর-এজ-জোর শহরে, আলেপ্পো, ডেরাআ এবং দামাস্কাসের উপকণ্ঠে.