পাকিস্তানের পার্লামেন্ট দেশের মধ্যে দিয়ে ন্যাটোর প্রয়োজনীয় মালপত্রের পরিবহন আবার নতুন করে শুরু করার জন্য সরকারকে সুপারিশ করেছে, তবে দাবী করেছে, যে আমেরিকা যেন পাকিস্তানের সীমান্তের ভেতরে কোনো লক্ষ্যে বোমাবাজি না করে. আজ এ্যাসোশিয়েটেড প্রেস সংবাদসংস্থা এই খবর দিয়েছে. গতকাল পার্লামেন্টে বক্তব্য রাখতে গিয়ে দেশের প্রধানমন্ত্রী ইউসুফ রাজা গিলানি পার্লামেন্ট সদস্যদের আশ্বাস দিয়েছেন, যে সরকার তাদের সুপারিশ অবশ্যই বিবেচনা করবে. কবে নাগাদ পাকিস্তানের ভূখন্ডের মধ্যে দিয়ে আবার ন্যাটোর মালপত্র পরিবহন শুরু হতে পারে, সে বিষয়ে কিছু জানানো হয়নি.

   ইসলামাবাদ ও ন্যাটোর মধ্যে সম্পর্কের গুরুতর অবনতি ঘটে, যখন ন্যাটোর কয়েকটি ফাইটার হেলিকপ্টার ২৬শে নভেম্বর রাত্রে পাকিস্তানের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে উপজাতি অধ্যুষিত মোহমান্দ জেলায় দুটি প্রহরা চৌকির উপর বোমাবর্ষন করে. তখন ২ জন অফিসার সহ অন্ততঃ ২৪ জন পাক সৈন্য নিহত হয় ও ১৪ জন আহত হয়. পাকিস্তান প্রত্যুত্তরে আফগানিস্তানে ন্যাটোর সামরিক কর্মচারীদের জন্য প্রয়োজনীয় মালপত্র দেশের ভূখন্ড দিয়ে চালান করতে দেওয়া বন্ধ করে দেয় এবং আমেরিকার কাছ থেকে দাবী করে, যে তারা যেন অবিলম্বে গোপন এয়ারবেস শামসি পরিত্যাগ করে ও জানিয়ে দেয়, যে তারা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটোর সাথে সব চুক্তি পুণর্বিবেচনা করে দেখবে.