বিশ্ব আর্থিক সঙ্কটের পরে রাশিয়া অন্যান্য দেশের চেয়ে তাড়াতাড়ি অর্থনীতি পুনর্স্থাপন করেছে এবং “জি-৮” রাষ্ট্রগুলির মধ্যে অর্থনীতি বৃদ্ধির সবচেয়ে উঁচু হার প্রদর্শন করছে. এ সম্বন্ধে আজ বলেছেন প্রধানমন্ত্রী  ভ্লাদিমির পুতিন রাষ্ট্রীয় দুমায় সরকারের কাজকর্ম সম্বন্ধে রিপোর্ট সহ বক্তৃতা দিয়ে. এ বছরের গোড়ায় রাশিয়ার মোট আভ্যন্তরীন উত্পাদন সঙ্কট-পূর্ব মান ছাড়িয়ে গেছে, অর্থনীতি মন্দার কুপরিণতি পূর্ণ মাত্রায় কাটিয়ে উঠেছে. অর্থনৈতিক বিকাশ মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, এ বছরের  জানুয়ারী-ফেব্রুয়ারী মাসে দেশের মোট আভ্যন্তরীন উত্পাদন ২০১১ সালের অনুরূপ সময়ের তুলনায় ৪.৩ শতাংশ বেড়েছে. বিগত চার বছরে বিনিয়োগের পরিমাণ দু গুণ বেড়েছে. গত বছরে রাশিয়ার কল-কারখানাগুলির মুনাফা প্রায় ১৬ শতাংশ বেড়েছে, আর সংগ্রহ করা কর বাজেটে জমা হয়েছে ২৭ শতাংশ বেশি. বিগত চার বছরে মুদ্রাস্ফীতির মান অর্ধেক কমেছে. পুতিন জোর দিয়ে বলেন, “রাশিয়ার নতুন ইতিহাসে মুদ্রাস্ফীতির এত নিম্ন মান আগে কথনও ছিল না”. প্রধানমন্ত্রী বলেন, রাশিয়ার বিকাশের সমস্ত মুখ্য সূচক অনুযায়ী ইতিবাচক গতি পরিলক্ষিত হচ্ছে.