রাশিয়া আর ভারতের যৌথ মহাকোশগতিক উদ্যোগ “ব্রামোস” যুদ্ধজাহাজ ধ্বংস করার জন্য নতুন শব্দাতিত রকেট তৈরি করেছে, যার উড়ানোর দূরত্ব হবে ২৯০ কিলোসিটার. এই বিষয়ে শনিবার জানিয়েছে উদ্যোগটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক সিভাথানু পিল্লাই. ২৮ই আর ৩০ই মার্চ এই রকেটের পরীক্ষা হয়েছে পূর্বাঞ্চলের রাজ্য অড়িশার বহুভুজে. পাতাকের কথায়, যৌথ উদ্যোগ “ব্রামোস” ইতিমধ্যেই সেনাবাহিনীর ২টো উপশাখায় এমন রকেট সরবরাহ করেছে. “ব্রামোস” রকেটের আরেক উদ্দেশ্য হচ্ছে নৌযুদ্ধে বিভিন্ন রকমের নিশানা ধ্বংস করা. বিশেষজ্ঞদের মতে, এই ধরনের অতিশাব্দিকরোকেট এমন উড়ানোর দূরত্বের সঙ্গে সারা বিশ্বে নেই. পাতাক আরো বলেছেন, যে ২০১২ সালের শেষে “ব্রামোস”শব্দাতিত বিমান থেকে ছোঁড়া রকেটগুলির পরীক্ষা শুরু হবে. বিমান থেকে ছোঁড়া রোকেটের ওজন প্রাথমিক মডেলের চেয়ে ৫০০ কে.জি.র কম হবে. Su-30MKI থেকে  নিক্ষেপ করার জন্য “ব্রামোস” রকেটগুলির পরিবর্তনের কাজ ভারত পালন করবে. কয়েক বিমান বিশেষভাবে পরিবর্তিত হচ্ছে. তা ছাড়া,যৌথ উদ্যোগটির প্রতিনিধি জানিয়েছে, যে ভারতীয় বায়ুসেনা নিজের ২টি উপশাখার জন্য ভূমি-ভিত্তিক “ব্রামোস” রকেট কিনেছে. এই রোকেটগুলো ভারতের সীমান্তের কাছে স্থাপিত হবে আর তাদের উদ্দেশ্য হবে কাছাকাছি ভূখণ্ডে বায়ু নিশানা ধ্বংস করা.