ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমগুলি জানাচ্ছে, যে লক্ষ লক্ষ মানুষ দেশে ধর্মঘটে নেমেছে. বস্তুত ধর্মঘটে সামিল হয়েছে সব পেশার কর্মীরাঃ শিল্প ক্ষেত্র, যানবাহন ব্যবস্থা, ব্যাঙ্কিং ক্ষেত্র, ডাক ব্যবস্থা ও অন্যান্য ক্ষেত্রের কর্মচারীরা. বড় শহরগুলির জীবনযাত্রা প্রায় অচল হয়ে গেছে – রাস্তাঘাটে সরকারী যানবাহন দেখা যাচ্ছে না, সব ব্যাঙ্ক ও অফিস বন্ধ. তবে চিকিত্সকেরা এবং বিদ্যুতশিল্প ও রেলওয়েজের কর্মীরা ধর্মঘটে যোগ দেয়নি. ট্রেড ইউনিয়নগুলি কর্মের পরিবেশের উন্নতি, সামাজিক বীমা, কর্মচারীদের অধিকার পালন করার দাবী জানাচ্ছে. কর্মচারীরা তাছাড়াও দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির উঁচুহারের বিরূদ্ধে প্রতিবাদ জানাচ্ছে, যে কারণে তাদের সত্যিকারের আয় কমে যাচ্ছে. কর্মদাতারা ঘোষণা করেছে, যে ধর্মঘটের দিনগুলির জন্য তারা মাইনে দেবে না, উপরন্তু তারা ধর্মঘটে সামিল হওয়া স্টাফবহির্ভূত কর্মচারীদের ছাটাই করারও হুমকি দিয়েছে.