উত্তর কোরিয়া থেকে চীনে পালানো উদ্বাস্তুদের প্রশ্ন দক্ষিণ কোরিয়া জাতিসংঘে তুলতে চায়. আজ সিওলে এক ব্রিফিংয়ে দক্ষিণ কোরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র এই সংবাদ দিয়েছেন. ইতিপূর্বে জানানো হয়েছিল, যে চীন যেন ঐ উদ্বাস্তুদের উত্তর কোরিয়ায় ফেরত না পাঠায়, সেই ব্যাপারে আলোচনা হয়েছিল বৈদেশিক রাজনীতি দপ্তরের পর্যায়ে চীন ও দক্ষিণ কোরিয়ার মধ্যে. যেহেতু সেই আলোচনা বিফল হয়েছে, তাই সিওল এবার উত্তর কোরিয়ার উদ্বাস্তুদের প্রশ্নে আন্তর্জাতিক সমর্থন চায়.

       ৩০ জন উদ্বাস্তুর ভাগ্য নিয়ে কথা হচ্ছে. চীন তার ভূখন্ডে তাদের ধরেছে এবং তাদের স্বদেশে ফেরত পাঠাতে চায়, মানবাধিকার রক্ষাকর্মীদের মতে যার পরিণতি হবে মাতৃভূমির প্রতি বিশ্বাসঘাতকতা করার অভিযোগে কারাদন্ড অথবা এমনকি মৃত্যুদন্ড পর্যন্ত. উত্তর কোরিয়ার নাগরিকরা প্রায়ই চীনে পালায়, যেখানে চেষ্টা করে বেআইনিভাবে দক্ষিণ কোরিয়া বা অন্য কোনোদেশের কূটনৈতিক মিশনে ঢুকে পরার, এই আশায়, যাতে পরে রাজনৈতিক আশ্রয় লাভ করে বসবাসের জন্য বিদেশে পাড়ি দেওয়া যায়. সাধারনতঃ চীনা প্রশাসকেরা আটক করা উদ্বাস্তুদের উত্তর কোরিয়ায় ফেরত পাঠায়.