“ঐস্লামিক বিপ্লব সুরক্ষা বাহিনী” তাদের প্রশিক্ষণের মূল পর্যায়ে উপনীত হয়েছে. এই খবর সোমবারে এই বাহিনীর উত্স থেকে প্রচার করা হয়েছে. মহড়ার সময়ে প্রতিরক্ষার উপায় ও নানা ধরনের নতুন অস্ত্র ব্যবহার করে দেখা হচ্ছে. ২০১১ সালের ডিসেম্বর মাসে খবর পাওয়া গিয়েছিল যে, ঐস্লামিক প্রজাতন্ত্র ইরানের নেতা আয়াতোল্লা আলি খোমেইনি নির্দেশ দিয়েছেন এই বাহিনীকে সম্পূর্ণ ভাবে তৈরী থাকতে, যাতে সম্ভাব্য আক্রমণ প্রতিরোধ করা যায়.