0সোমবারে ইজরায়েলের পররাষ্ট্র দপ্তরের প্রধান বলেছেন, যে তাঁরা জানেন ভারত ও জর্জ্জিয়াতে ইজরায়েল দূতাবাসের কাছে বিস্ফোরণের জন্য কারা দায়ী. তিনি বলেছেন, “কোন রকমের বিশদ বর্ণনা না দিয়ে আজই আমরা ঠিক করে জানি কারা এই ভারতের সন্ত্রাসের পেছনে রয়েছে. আমরা এটা এই রকম ভাবে ছেড়ে দেবো না”, তিনি “আমাদের বাড়ী – ইজরায়েল” দলের বৈঠকে ভাষণ দিচ্ছিলেন. এর আগে ইজরায়েলের পররাষ্ট্র দপ্তর থেকে বলা হয়েছিল যে, বিস্ফোরণে ইজরায়েলের এক নাগরিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে. বলা হয়েছে যে, দূতাবাসের সামরিক দপ্তরের কর্মীর গাড়ীর তলায় এই বোমা লাগানো হয়েছিল. এই ঘটনা ঠিক চার বছর পরে ঘটেছে, যখন লেবাননের হেজবোল্লা আন্দোলনের এক নেতা ইমাদ মুগনিয়া নিহত হয়েছিলেন. তাঁর মৃত্যুর কারণ হিসাবে দলের লোকেরা ইজরায়েলের বিশেষ বাহিনীকে অভিযুক্ত করেছিল.