আজ ইন্টারফ্যাক্স সংবাদসংস্থা জানিয়েছে, যে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে সিরিয়া প্রসঙ্গে মরক্কো কতৃক প্রস্তাবিত খসড়া ঘোষণাপত্রের বয়ান থেকে বাশার আসাদকে পদত্যাগ করার আহ্বাণ বাদ দেওয়া হয়েছে. সংবাদসংস্থাটি প্রদত্ত খবর অনুযায়ী, জাতিসংঘে রাশিয়ার স্থায়ী প্রতিনিধি ভিতালি চুরকিনের অনুরোধেই সেটা করা হয়েছে. গতকাল নিরাপত্তা পরিষদ ঘোষণাপত্রের বয়ান নির্দ্ধারন করেছে, কিন্তু ভোটাভুটি হওয়ার আগে নিরাপত্তা পরিষদের সদস্য সব দেশের রাজধানীতে তা পাঠানো হবে. জাতিসংঘে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের স্থায়ী প্রতিনিধি সুজান রাইসের মতে, অতঃপর নিরাপত্তা পরিষদের ১৫টি সদস্য দেশের রাজধানীতে ঘোষণাপত্রের বয়ান নিয়ে বোঝাপড়া করতে হবে. জাতিসংঘের কূটনীতিজ্ঞরা বলেছেন, যে কোনো কোনো ধারা শিথিল করা হয়েছে, যাতে রাশিয়ার প্রতিবাদ অতিক্রম করা যায়. নতুন বয়ানে রাষ্ট্রপতি বাশার আসাদকে পদত্যাগ করার আহ্বাণ নেই. ঘোষণাপত্রের বয়ান আরব রাষ্ট্রলীগের পরিকল্পনার ভিত্তিতে তৈরি করা হলেও, মস্কো একনাগাড়ে বলে যাচ্ছে, যে ঐ পরিকল্পনা গৃহীত হলে দেশে শাসলব্যবস্থার রদবদল হয়ে যাবে.

    রাশিয়ার আপত্তি থাকা সত্বেও চূড়ান্ত বয়ান তৈরি হয়ে গেছে এবং খুব শীঘ্রই সেটা সব সদস্য দেশে পাঠানো হবে. বি.বি.সি. জানাচ্ছে, যে ২৪ ঘন্টার মধ্যে কোনো দেশ যদি বয়ানে কোনো পরিবর্ধন আনার দাবী না জানায়, তাহলে বর্তমানের বয়ান নিয়েই ভোটাভুটি হবে.