ইউরোপীয় সংঘের কূটনীতি দপ্তরের প্রধান ক্যাথরিন এ্যাশটন জানিয়েছেন, যে এখনো পর্যন্ত বিশ্ব জনসমাজের সাথে আলাপ-আলোচনা নতুন করে শুরু করার জন্য ইরানকে পাঠানো আমন্ত্রণের জবাব তিনি পাননি. তিনি উল্লেখ করেছেন, যে আলাপ-আলোচনার জন্য ইরানের সামনে দরজা খোলা. গত অক্টোবরে এ্যাশটন ছয়পক্ষ(রাশিয়া, আমেরিকা, বৃটেন, জার্মানী, ফ্রান্স ও চীনের) তরফ থেকে ইরানের জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের সচিব সাইদ জলিলকে চিঠি পাঠিয়েছিলেন. ঐ চিঠিতে উল্লেখ করা হয়েছিল, যে যদি ইরান প্রমাণ করতে পারে, যে তার পারমানবিক প্রকল্পের কোনো সামরিক লক্ষ্য নেই, তাহলে আলাপ-আলোচনা আবার শুরু করা সম্ভব. ইরানের কর্তৃপক্ষ তখন ঘোষণা করেছিল, যে তারা শীঘ্রই এ্যাশটনের চিঠির উত্তরে ছয়পাক্ষিক আলাপ-আলোচনার স্তর ও সংগঠনের ব্যাপারে তাদের নিজস্ব শর্ত জানাবে এবং ঐ আলাপ-আলোচনার পরিপ্রেক্ষিতে তারা আশাবাদী. গত সপ্তাহে ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আলি আকবর সালেহি ঘোষণা করেছেন, যে তেহেরান ইরানের পারমানবিক প্রকল্পের বিষয়ে ছয়পাক্ষিক আলোচনা নতুন করে শুরু করতে প্রস্তুত, কিন্তু ঐ আলোচনার আয়োজনস্থান নির্ণয় করা দরকার.