ভারতে রাশিয়ার রাষ্ট্রদূতাবাসের ইন্টারনেট সাইটে গতকাল হামলা করা হয়, খুব সম্ভবতঃ বাশার আসাদের বিরোধীরা এই কাজ করেছে.রিয়া নোভোস্তিকে দূতাবাসের প্রবীন কর্মী সের্গেই কার্মালিতো এই খবর দিয়েছেন. তিনি বলেছেন, যে হ্যাকারদের আক্রমণের দরুন সাইট বেশ কিছুক্ষন ধরে ঠিকঠাকভাবে খুলছিল না. তারপরে ইন্টারনেটে সিরিয়ার কয়েকজন হ্যাকারের ঘোষণা দেখা যায়, যারা বাশার আসাদের শাসনব্যবস্থার সমালোচনা করেছে. তারা স্বীকার করেছে, যে ভারতে রাশিয়ার রাষ্ট্রদূতাবাসের সাইট ভেঙে মস্কোকে আসাদকে সমর্থণ করা এবং অস্ত্র সরবরাহ করা থেকে বিরত হওয়ার আহ্বাণ জানানো হয়েছে.

     সিরিয়ায় গত ৯ মাস ধরে অবিরত সরকারবিরোধী আন্দোলন চলছে. গত সপ্তাহে ইউরোপীয় সংঘের সদস্য ২৭টি দেশ ব্রাসেলসে সিরিয়ার বিরূদ্ধে বিধিনিষেধ আরও কড়া করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে. রাশিয়ার মতে, পাশ্চাত্য বিধিনিষেধ জারী করে লিবিয়ার মতো সিরিয়ারও সার্বভৌমত্ব খর্ব করার চেষ্টা করছে. রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরোভ বলেছেন, যে সিরিয়ায় যাতে শক্তিপ্রয়োগ করা না হয় এবং জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিযদে সশস্ত্র অভিযান অনুমোদিত না হয়, সেজন্য রাশিয়া সর্বোতভাবে চেষ্টা করবে.