মস্কোয় আক্ষেপ ও আশংকার সঙ্গে ইরানের বিরূদ্ধে ইউরোপীয় সংঘের নতুন করে একপাক্ষিক নিষেধাজ্ঞা জারীকে গ্রহণ করা হয়েছে. সোমবার সন্ধ্যায় রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রক থেকে এই মন্তব্য করা হয়েছে. ইউরোপীয় সংঘ কতৃক আরোপিত নতুন নিষেধাজ্ঞা ইরানের অর্থনীতির বহু দিকের দমবন্ধ করে দেবার প্রয়াস বলে মন্ত্রণালয় উল্লেখ করেছে. মস্কোয় ঘোষণা করা হয়েছে, যে নতুন নিষেধাজ্ঞা হল খোলাখুলি চাপ দেওয়া, ইরানকে কথাবার্তা বলতে না চাওয়ার জন্য শাস্তি দেওয়ার চেষ্টা. রাশিয়া মনে করে, যে ইরানের পারমানবিক প্রকল্পের সমস্যা সমাধানের প্রয়াসে এটা অত্যন্ত ভুল পথ.

   এই ধরনের চাপে পড়ে ইরান একখন্ড ভুমিও ছাড়বে না, তাদের রাজনীতির ধারারও কোনো পরিবর্তন হবে না – রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রকের মন্তব্যে বলা হয়েছে.

    রুশীপক্ষের মতে ইরানের পারমানবিক প্রকল্পের সমস্যা সমাধানের জন্য রাজনৈতিক ও কূটনৈতিক নিষ্পত্তির অন্য কোনো বিকল্প নেই. রাশিয়ার দাবী এই, যে সমস্যার সমাধান হওয়া উচিত সমানাধিকার এবং পারস্পরিক সৌজন্য প্রদর্শনের ভিত্তিতে.