পিয়ং-ইয়ংয়ে বৃহস্পতিবার জাতীয় শোক সমারোহ অনুষ্ঠিত হয়েছে কিম চেন ইরের মৃত্যু উপলক্ষে, জানিয়েছে উত্তর কোরিয়ার সংবাদ এজেন্সি. সারা দেশে কামানের গোলা বর্ষণ করে শ্রদ্ধা জানানো হয়েছে আর পিয়ং-ইয়ংয়ে তথা উত্তর কোরিয়ার সমস্ত প্রদেশে অধিবাসীরা তিন মিনিটের মৌনতা অবলম্বন করে প্রয়াত রাষ্ট্রপ্রধানের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে. সমস্ত ট্রেন ও জাহাজ, এমনকি পথে থাকাকালীনও, সাইরেন বাজিয়েছে. সাইরেনের আওয়াজ শোনা গেছে সারা দেশে, জানিয়েছে সংবাদ এজেন্সি. উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন পিয়ং-ইয়ংয়ে বিশাল শোক-সভার সম্প্রচার করেছে. তাতে দেখা গেছে যে, কিম ইর সেন স্কোয়ারে জমা হয়েছে লক্ষ লক্ষ লোক. কেন্দ্রীয় মঞ্চে ছিলেন কিম চেন ইরের ছোট ছেলে এবং উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রনেতার পদে উত্তরাধিকারী কিম চেন ঈন, এবং উত্তর কোরিয়ার পার্টি, রাষ্ট্র ও সৈন্যবাহিনীর সর্বোচ্চ ব্যক্তিরা. বুধবার উত্তর কোরিয়ায় কিম চেন ইরের রাষ্ট্রীয় অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া অনুষ্ঠিত হয়, যিনি মারা যান ১৭ই ডিসেম্বর ব্যাপক হার্ট-অ্যাটাকে. কিম চেন ইরের শবদেহ রাখা হবে কীমসুসান প্রাসাদে কাঁচের আবরণে ঢাকা অবস্থায় তাঁর পিতার পাশে. তাছাড়া প্রদর্শিত হবে তাঁর মোটরগাড়ি. বিশেষ ট্রেনের ওয়াগনের অংশ, তাঁর জামা-কাপড় এবং কাজের টেবিল.