আগামী তিন বছরে রাশিয়ার অর্থনীতিতে নিয়োগ করা উচিত্ প্রায় ১.৩৬ লক্ষ কোটি ডলার, বলেছেন রাশিয়ার প্রধানমন্ত্রী ভ্লাদিমির পুতিন. বুধবার পুতিন “কারবারী রাশিয়া” নামে সর্বরুশ সামাজিক সংস্থার কংগ্রেসে বক্তৃতা দেন. কংগ্রেসে একটি মুখ্য আলোচ্য বিষয় ছিল “কারবারী রাশিয়ার” দ্বারা ২০১১ সালের মে মাসে প্রস্তাবিত “নতুন শিল্পায়ন” নামে কর্মসূচি. মুখ্য প্রশ্ন – নতুন শিল্পায়নের মূল্য এবং তা বাস্তবায়নের উত্স. এমন উচ্চাশাপূর্ণ কর্তব্য কিভাবে সম্পাদন করা যায় সে কথায় এসে পুতিন উল্লেখ করেন যে, শুধু রাষ্ট্রীয় বাজেট থেকে এই বিপুল পরিমাণ অর্থ পাওয়া সম্ভব নয়. তিনি সতর্ক করে দেন যে, বাজেটের খরচ বৃদ্ধির সাথে সাথে করের বেঝাও বাড়বে. একই সঙ্গে নিয়ন্ত্রণহীন কর বৃদ্ধি এবং স্বাভাবিক একচেটিয়ার মূল্য বৃদ্ধি রাশিয়ার সরকার করতে পারে না, জোর দিয়ে বলেন প্রধানমন্ত্রী. তিনি তাছাড়া মনে করিয়ে দেন যে, আগামী ১০ বছরে মাথাপিছু মোট আভ্যন্তরীন উত্পাদন দেড়গুণ বাড়ানোর পরিকল্পনা আছে. রাষ্ট্রসঙ্ঘের তথ্য অনুযায়ী, রাশিয়া বিনিয়োগের দিক থেকে পাঁচটি সবচেয়ে আকর্ষণীয় দেশের অন্তর্ভুক্ত. মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোসঙ্ঘের অর্থনীতিতে সঙ্কটজনক ঘঠনার পটভূমিতে রাশিয়ার প্রয়োজন “নিজস্ব, আভ্যন্তরীন বিনিয়োগের মোটর চালু করা, উত্পাদনী ব্যবসাকেই সমর্থন করা”, মনে করেন পুতিন.