পাকিস্তানের রাষ্ট্রপতি আসিফ আলি জারদারীর প্রতিনিধি ফার্হাতুল্লা বাবর বুধবার স্থানীয় প্রচার মাধ্যমে সক্রিয়ভাবে আলোচিত রাষ্ট্রপতির পদত্যাগের অভিপ্রায়ের খবর খন্ডন করেছেন. বাবর এ কথা সমর্থন করেছেন যে, জারদারী হৃদরোগের সমস্যার জন্য কার্ডিোলজিক্যাল পরীক্ষার উদ্দেশ্যে দুবাইয়ে গেছেন. সেই সঙ্গে তিনি জোর দিয়ে বলেন যে, স্বাস্থ্যের কারণে রাষ্ট্রপতির তাড়াতাড়ি পদত্যাগ করার খবর গুজব ছাড়া আর কিছু নয়. নভেম্বরের মাঝামাঝি পাকিস্তানের রাষ্ট্রপতি এক কেলেঙ্কারীর কেন্দ্রবিন্দু হয়ে ওঠেন, যা প্রচার মাধ্যমের মতে, তাঁর কেরিয়ার খতম করতে পারে. এ খবর দেখা দিয়েছে যে, জারদারী মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে পাকিস্তানের রাষ্ট্রদূত হুসেইন হাক্কানির মারফত মার্কিনী অধিনায়কমন্ডলীকে গোপন চিঠি পাঠিয়েছেন, যাতে পাকিস্তানী বাহিনীকে নিয়ন্ত্রণাধীন রাখতে সাহায্য করার অনুরোধ জানানো হয়েছে. এ ঘটনার দরুণ রাষ্ট্রদূত পদত্যাগ করেছেন এবং রাষ্ট্রপতিকেও হয়ত তা করতে হবে.