লিবিয়ার অন্তর্বর্তী জাতীয় পরিষদের কয়েক শো সৈনিক ত্রিপোলির কেন্দ্রস্থলে বেতন আটকে রাখার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ মিছিল আয়োজন করে. যুবকেরা সমবেত হয় একটি হোটেল ভবনের কাছে. তাদের বেশির ভাগের হাতে অস্ত্র ছিল এবং তারা কাঁচের দরজা ভেঙে ভবনের ভিতরে ঢুকে পড়ার চেষ্টা করেছিল, কিছু সৈনিক আকাশে গুলি ছোঁড়ে. মার্কিনী "সি.এন.এন" টেলি-কোম্পানির অনুষ্ঠানে মিছিলের একজন অংশগ্রহণকারী এমনকি মুয়ম্মর গদ্দাফির মতো নতুন শাসন ব্যবস্থার উচ্ছেদের প্রতিশ্রুতি দেয়, যদি অতি নিকট ভবিষ্যতে বেতন দান সংক্রান্ত পরিস্থিতির উন্নতি না হয়. অন্তর্বর্তী জাতীয় পরিষদের আমলারা এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করছে না.