ইউরোপ ব্যবস্থাগত সঙ্কটের কাছে গিয়ে পৌঁছেছে, আর এ বিপদ দূর করা প্রয়োজন ছিল, বৃহস্পতিবার সকালে ব্রাসেলসে এক ব্রিফিংযে বলেছেন ইউরো পরিষদের প্রধান হের্মান ভান রম্পেই. শীর্ষ সাক্ষাতে গোটা ইউরো অঞ্চলে ঋণ সঙ্কট ছড়িয়ে পড়া সম্পর্কে সতর্ক করার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে, জানিয়েছে “ইন্টারফাক্স” সংবাদ সংস্থা. ইউরোপীয় আর্থিক স্থিতিশীলতা তহবিলে অর্থের পরিমাণ ছিল ৪৪ হাজার কোটি ইউরো, এখন তা প্রায় ৫ গুণ বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, অন্ততপক্ষে ১ লক্ষ কোটি ইউরো পর্যন্ত, বলেন ভান রম্পেই. ইউরো অঞ্চলের দেশগুলির প্রধানরা অতিরিক্ত সংস্কার প্রয়োজন এমন সব দেশের জন্য অতিরিক্ত কর সংগ্রহ এবং বাজেট সুস্থ করে তোলার অতিরিক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ সম্পর্কে সমঝোতায় এসেছেন. শীর্ষ সাক্ষাতে গ্রীসকে এক বছরের মধ্যে ১০ হাজার কোটি ইউরো সাহায্য দানের প্রশ্ন মীমাংসা সম্পর্কে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে. এ সাহায্যে যোগ দেবে গ্রীসের চারটি প্রাইভেট ঋণদাতা, যারা গ্রীসের ঋণের ৫০ শতাংশ খারিজ করায় সম্মত হয়েছে. শীর্ষ সাক্ষাতে তাছাড়া অর্থনৈতিক নিয়ন্ত্রণের ব্যবস্থা অনুমোদিত হয়েছে. ২০১২ সালে ইউরোসঙ্ঘে বাজেট প্রথা ও আর্থিক নিয়ন্ত্রণের নতুন ব্যবস্থা চালু হবে, যাতে “অতীতের ভুলত্রুটির পুনরাবৃত্তি হবে না”. হের্মান ভান রম্পেই বলেন, “আমরা আমাদের ভবিষ্যতের ভিত্তি স্থাপন করেছি”. একই সঙ্গে ইউরোপীয় নেতারা এশীয় অর্থনীতির সাহায্যে ইউরোসঙ্ঘকে সাহায্য ও সমর্থনের ধারণা ত্যাগ করেন নি. এশিয়ায় সমর্থনের অনুসন্ধানে ইউরোপীয় আর্থিক স্থিতিশীলতা তহবিলের প্রধান ক্লাউস রেগলিঙ্গ চীন ও জাপান সফর করবেন. রেগলিঙ্গ বেজিংয়ে পৌঁছোবেন ২৮শে অক্টোবর, আর শনিবার ও রবিবার তিনি টোকিওতে আলাপ-আলোচনা চালাবেন. তাঁর এ সফরটি বেসরকারী চরিত্রের.