রাশিয়া নিজের পররাষ্ট্রনৈতিক স্বার্থ একনিষ্ঠভাবে রক্ষা করবে, তবে “বিশ্ব পুলিশের” ভূমিকার দাবি না করে. এ সম্বন্ধে রাশিয়ার টেলি-চ্যানেলগুলিকে প্রদত্ত ইন্টারভিউতে বলেছেন রাশিয়ার প্রধানমন্ত্রী ভ্লাদিমির পুতিন. মস্কো দেশের আভ্যন্তরীন বিকাশের জন্য পরিবেশ সৃষ্টির দিকে নির্দেশিত নীতি অনুসরণ করবে. আন্তর্জাতিক পর্যায়ে রাশিয়া সেই সব প্রশ্নে নিজের স্থিতি রক্ষা করবে, যা প্রত্যক্ষভাবে তাকে স্পর্শ করে, নিজের কাঁধে “অতি বৃহত্ শক্তির পোষাক” আঁটার চেষ্টা না করে. সেই সঙ্গে, পুতিন পাশ্চাত্যের সমালোচকদের পরামর্শ দেন মস্কোকে সাম্রাজ্যবাদী ক্রিয়াকর্মের খোঁটা না দেওয়ার, বরং মুদ্রাস্ফীতি ও রাষ্ট্রীয় দেনার বিরুদ্ধে সংগ্রাম করার. তিনি মনে করিয়ে দেন যে, ইউরোপে অঙ্গীভূতি এখন সোভিয়েত ইউনিয়নের সময়ের তুলনায় অনেক বেশি. রাশিয়া সোভিয়েত ইউনিয়নকে পুনরুজ্জীবিত করার চেষ্টা করছে না, সে এ অঞ্চলে অর্থনৈতিক এলাকা গঠনে আগ্রহী, তাই “নিজের উপর এ ভারের একাংশ নিতে” প্রস্তুত, জোর দিয়ে বলেন পুতিন.