0জাপানে ১১ই মার্চের ধ্বংসাত্মক ভূমিকম্পের পরে দেশের পুনর্স্থাপনে গুরুতর বাধা হয়ে উঠেছে লক্ষ লক্ষ টন বর্জ্যের পুনর্ব্যবহারের সমস্যা, যার মধ্যে রয়েছে বাড়িঘর ও অন্যান্য নির্মাণকাজের ধ্বংসস্তূপ. এ সম্বন্ধে বুধবার বলেছেন দেশের পুনর্স্থাপন সংক্রান্ত মন্ত্রী হোসি হোসোনো, প্রতিবেশ সংক্রান্ত মন্ত্রণালয়ের দ্বারা বিশেষ করে আয়োজিত প্রিফেক্তুরা (জেলা) প্রধানদের বৈঠকে. জাপানের প্রতিবেশ সংক্রান্ত মন্ত্রণালয়ের প্রাথমিক হিসেব অনুযায়ী, বর্জ্যের পরিমাণ ২ কোটি ৩০ লক্ষ টনের উপর. ৪৭টি প্রিফেক্তুরার মধ্যে ৪২টি নিজেদের এলাকায় প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের পরে বর্জ্যের পুনর্ব্যবহারের জন্য তা গ্রহণ করতে সম্মত হয়েছিল. তবে “ফুকুসিমা-১” পারমাণবিক বিদ্যুত কেন্দ্রে তেজষ্ক্রিয়তা নিষ্ক্রমণের পরে ভাঙ্গা টুকরোগুলির তেজষ্ক্রিয়তার দ্বারা প্রভাবিত হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দেয়. আর তা পুনর্ব্যবহারের প্রক্রিয়া প্রকৃতপক্ষে থামিয়ে দিয়েছে. জনসাধারণের ক্রমবর্ধমান চাপের দরুণ স্থানীয় প্রশাসনের প্রধানরা নিজেদের এলাকায় ভাঙ্গা টুকরো গ্রহণ করতে সাহস করছে না. বিপর্যয়ের চার মাস পরে মন্ত্রণালয়ের হিসেব অনুযায়ী, পুনর্ব্যবহারের জন্য অপসারিত বর্জ্যের পরিমাণ ৩০ শতাংশের বেশি নয়.