পূর্ব জেরুসেলামে বসতি নির্মাণ প্রসার সম্পর্কে ইস্রাইলের সিদ্ধান্ত প্যালেস্টাইনী জাতীয় প্রশাসনের সাথে প্রত্যক্ষ আলাপ-আলোচনা পুনরারম্ভের জন্য তার প্রস্তুতি সম্বন্ধে সন্দেহ প্রকাশ করতে বাধ্য করছে. এ সম্বন্ধে বলেছেন ইউরোসঙ্ঘের কূটনীতির প্রধান ক্যাথ্রিন অ্যাশটন. ইস্রাইল মঙ্গলবার ঘোষণা করেছে যে, জর্ডান নদীর পশ্চিম তীরে গিলো পাড়ায় ১১০০টি বসত-বাড়ি নির্মাণ করতে চায়. অ্যাশটন পূর্ব জেরুসেলামে ইহুদী বসতি প্রসার ত্যাগ করার জন্য ইস্রাইলের কর্তৃপক্ষকে আহ্বান জানিয়েছেন. প্যালেস্টাইনী জাতীয় প্রশাসনের নেতৃবৃন্দ ইস্রাইলের সাথে প্রত্যক্ষ আলাপ-আলোচনায় ফিরতে অস্বীকার করছে, যতদিন না ইস্রাইল ১৯৬৭ সালের আরব-ইস্রাইলী যুদ্ধের আগে বিদ্যমান সীমানায় দুই রাষ্ট্রের – প্যালেস্টাইন ও ইস্রাইলের অস্তিত্বের মূলনীতিতে সম্মত হচ্ছে. ইস্রাইল, নিজের তরফ থেকে, ১৯৬৭ সালের সীমানায় ফিরতে এবং জেরুসেলামকে প্যালেস্টাইনীদের সাথে ভাগ করতে অস্বীকার করছে, এ শহরকে নিজের চিরকালের অবিচ্ছেদ্য রাজধানী হিসেবে ঘোষণা করে. রাষ্ট্রসঙ্ঘের নিরাপত্তা পরিষদ বুধবার এ বিশ্ব সংস্থায় পূর্ণাধিকারী সদস্য হওয়ার জন্য প্যালেস্টাইনের আবেদন আলোচনা করা শুরু করবে.