রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দমিত্রি মেদভেদেভ উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম চেন ইরের সাথে সাক্ষাতে আলোচনা করছেন কোরীয় উপদ্বীপের অ-পারমাণবিকীকরণের প্রশ্ন, জানিয়েছে “রিয়া নোভস্তি” সংবাদ সংস্থা. রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দমিত্রি মেদভেদেভ আজ সকালে উলান-উদেয় পৌঁছেছেন. এ সাক্ষাত্ অনুষ্ঠিত হচ্ছে "সস্নোভোই বোর" নাম জায়গায়, যেখানে রওনা হয়ে গেছেন কিন চেন ইর, জানিয়েছে “ইতার-তাস” সংবাদ সংস্থা. মেদভেদেভ ও কিম চেন ইর বিপুল মনোযোগ দেবেন কোরীয় উপদ্বীপের পারমাণবিক সমস্যা মীমাংসা সংক্রান্ত ছয়পাক্ষিক আলাপ-আলোচনা যথাসম্ভব তাড়াতাড়ি পুনরারম্ভের বিষয়ের প্রতি. উত্তর কোরিয়ার পারমাণবিক কর্মসূচি ছাড়া পক্ষদ্বয় রাজনৈতিক সংলাপ সুদৃঢ় করার প্রশ্নের প্রতিও মনোযোগ দিতে চান. একটি জরুরী আলোচ্য বিষয় হবে ত্রিপাক্ষিক অর্থনৈতিক প্রকল্প বাস্তবায়ন শুরুর পরিপ্রেক্ষিত, যাতে অংশগ্রহণ করবে রাশিয়া, দক্ষিণ কোরিয়া ও উত্তর কোরিয়া, ক্রেমলিনের এক উত্সকে উদ্ধৃত করে এ সম্বন্ধে জানিয়েছে “রিয়ান” সংবাদ সংস্থা. প্রচার মাধ্যমগুলি ত্রিপাক্ষিক সহযোগিতার সবচেয়ে উচ্চাশাপূর্ণ প্রকল্প হিসেবে অভিহিত করে রাশিয়া থেকে উত্তর কোরিয়া হয়ে দক্ষিণ কোরিয়ায় গ্যাসের পাইপলাইন নির্মাণের প্রতি, যার মারফত বছরে ১০০০ কোটি ঘনমিটার গ্যাস সরবরাহ করা যাবে. মঙ্গলবার কিম চেন ইর পৌঁছোন বুরিয়াতিয়ায়, সেখানে বৈকাল হ্রদে যান এবং তারপরে পরিদর্শন করেন উলান-উদের বিমান নির্মাণ কারখানা. যা “মি” মার্কা হেলিকপ্টারের অন্যতম বৃহত্ উত্পাদক. উত্তর কোরিয়ার নেতা সফর করছেন গোলাগুলি নিরোধ সক্ষম ট্রেনে, যার একটি ওয়াগনে থাকে তাঁর ব্যক্তিগত মোটরগাড়ি. এ সফর হচ্ছে অতিরিক্ত মাত্রার নিরাপত্তার পরিবেশে.