সোমবারে লিবিয়ার নেতা কর্নেল মুহম্মর গাদ্দাফির বিরোধী পক্ষের যোদ্ধারা দেশের রাজধানী ত্রিপোলিতে বেতার ভবন দখল করেছে, খবর দিয়েছে আরব সংবাদ সংস্থা আল- জাজিরা. লিবিয়ার টেলিভিশন চ্যানেল জানিয়েছে যে, সরাসরি প্রচার বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে ও তারা আগে রেকর্ড করা অনুষ্ঠান প্রচার করছে. এর আগে জানানো হয়েছিল যে, ত্রিপোলি শহরের নিয়ন্ত্রণ যোদ্ধাদের কবলে, শুধু প্রশাসনের মুখ্য দপ্তর বাব আল- আজিজিয়া, যেখানে গাদ্দাফির বাসস্থান, তা মুক্ত রয়েছে. আল- জাজিরা সংবাদ সংস্থার তথ্য অনুযায়ী, যুদ্ধ আপাততঃ স্থগিত রয়েছে. যোদ্ধারা দেশের কেন্দ্রীয় সবুজ চকে বিজয় উল্লাস করছে. একই সময়ে জানা গিয়েছে যে, গাদ্দাফির ব্যক্তিগত রক্ষী বাহিনী আত্ম সমর্পণ করেছে. আগে যোদ্ধারা জানিয়েছিল যে, তারা গাদ্দাফির ছেলে সৈফ আল- ইসলাম কে ধরেছে. আন্তর্জাতিক ফৌজদারী আদালত তার নামে গ্রেপ্তারী পরোয়ানা জারী করেছিল. রবিবারে ভোর রাতে বিরোধী যোদ্ধারা ত্রিপোলি শহরে ঢুকেছিল, তারা সেখানে কোন রকমের প্রতিরোধ দেখতে পায় নি. গাদ্দাফি ঘোষণা করেছেন যে, তিনি বিরোধী পক্ষের নেতা মুস্তাফা আবদেল জলিলের সঙ্গে আলোচনা করতে তৈরী. বিরোধী পক্ষের নেতা নিজের পক্ষ থেকে বলেছেন যে, আক্রমণ করা থামবে, যদি গাদ্দাফি পদত্যাগ ঘোষণা করেন. সরকারি তথ্য অনুযায়ী ত্রিপোলি অধিকারের যুদ্ধে গত ১২ ঘন্টায় ১৩০০ লোক নিহত হয়েছেন.