জর্ডনের রাজা দ্বিতীয় আবদাল্লা দেশের সংবিধান সংশোধনের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছেন, যার মধ্যে নিজের কিছু অধিকার দেশের পার্লামেন্টের হাতে সমর্পণ করতে রাজী. ইন্টারফ্যাক্স সংবাদ সংস্থা জর্ডনের রাজার উক্তি উদ্ধৃত করে জানিয়েছে যে, ঐতিহাসিক সংবিধান সংশোধন জর্ডনের লোকেদের রাজনৈতিক ভাবে প্রাপ্তবয়স্ক হওয়ার প্রতিফলন. এপ্রিল মাসে দেশে প্রতিবাদ মিছিল শুরু হওয়ার পরে দ্বিতীয় আবদাল্লা সংবিধান সংশোধনের জন্য পরিষদ নির্বাচন করেছিলেন. প্রস্তাবিত সংশোধনের মধ্যে – সাংবিধানিক আদালত তৈরী করা ও দেশের পার্লামেন্ট নির্বাচনের জন্য স্বাধীন পরিষদ তৈরী করার প্রস্তাবও রয়েছে. সংশোধনের প্রকল্প অনুযায়ী জর্ডনের সামরিক আদালতে শুধু সন্ত্রাসবাদী ও গুপ্তচর বৃত্তির সম্বন্ধে অভিযোগের বিচার হবে. এছাড়া পরিষদ পার্লামেন্ট সদস্য হওয়ার উপযুক্ত প্রার্থীদের বয়ঃসীমা ৩৫ থেকে কমিয়ে ২৫ করার প্রস্তাব করেছে. কিন্তু বিরোধীরা মনে করে যে, প্রস্তাবিত সংশোধন যথেষ্ট নয় ও প্রধানমন্ত্রী নির্বাচন সরাসরি হওয়া প্রয়োজন.