রাশিয়ায় বুধবার স্মৃতি ও শোক দিবস হিসেবে পালিত হচ্ছে. ৭০ বছর আগে এই দিন ফ্যাশিস্ট জার্মানি বিশ্বাসঘাতকতা করে সোভিয়েত ইউনিয়নের উপর আক্রমণ করে. এ যুদ্ধে এ দেশের প্রায় ২ কোটি ৭০ লক্ষ মানুষ মারা গেছে. নিহতদের স্মৃতিতে রাশিয়ার বিভিন্ন শহরে এবং স্বাধীন রাষ্ট্রবর্গের দেশগুলিতে “আমার স্মৃতির প্রহরা” নামে অভিযান চলছে. মস্কোয় লোকে সমবেত হয় ক্রেমলিনের পাশে আলেক্সান্দর বাগানে অজানা সৈনিকের সমাধিস্থলের কাছে. ভোর বেলায় হাজার হাজার মানুষ প্রবীন যোদ্ধাদের সাথে নিহতদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে বাতি জ্বালায় এবং গাছে ছোট ছোট ঘন্টা বেঁধে দেয়. আলমা-আতায় অভিযানের অংশগ্রহণকারীরা লাল কার্নেশন ফুল রেখে আসে পানফিলোভ বাহিনীর ২৮ জন বীরের স্মৃতিমূর্তির কাছে, মিনস্কে এবং বিশকেকে সামরিক অফিসাররা অভিযানে যোগ দেয়, দুশানবেতে – সামরিক বিদ্যালয়ের ছাত্ররা. ভোলগোগ্রাদে তরুণ-তরুণীরা এবং প্রবীন যোদ্ধারা সমবেত হয় মামায়েভ টিলায়. স্মৃতির অভিযান আজ অনুষ্ঠিত হচ্ছে বিভিন্ন দেশের বহু শহরে. মুখ্য অনুষ্ঠান হবে বেলোরুশিয়ার ব্রেস্ত শহরে, যা ১৯৪১ সালের ২২শে জুন প্রথম আঘাত গ্রহণ করেছিল.