রাশিয়া ফুকুসিমার দুর্ঘটনা বিবেচনায় রেখে শান্তিপূর্ণ পরমাণুর বিকাশ সম্পর্কে নিজের প্রস্তাব পেশ করবে

রাশিয়া নিকট ভবিষ্যতে আন্তর্জাতিক জনসমাজকে পারমাণবিক শক্তির বিকাশ সম্পর্কে নিজের প্রস্তাব পেশ করবে, জাপানের “ফুকুসিমা” পারমাণবিক বিদ্যুত্ কেন্দ্রের দুর্ঘটনার কথা বিবেচনায় রেখে. এ প্রস্তাব অনুযায়ী, পারমাণবিক কেন্দ্রের নিরাপত্তা সম্পর্কে একক, আরও কঠোর দাবি প্রণয়ন করা দরকার এবং ভূকম্পনের দিক থেকে বিপজ্জনক এলাকায় এমন কেন্দ্রের নির্মাণ নিষেধ করা উচিত্, জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি দমিত্রি মেদভেদেভ চীনের বোয়াও শহরে এশীয় সম্মেলনে বক্তৃতা দিয়ে. তিনি জোর দিয়ে বলেন যে, জাপানে ঘটা বিপর্যয় পারমাণবিক বিদ্যুত্শক্তির বিকাশে বাধা হয়ে ওঠা উচিত্ নয়, তবে এ থেকে যথাযথ সিদ্ধান্তে আসা উচিত্. জাপানের “ফুকুসিমা” কেন্দ্রে দুর্ঘটনা ঘটে ১১ই মার্চ দেশের গোটা ইতিহাসে সবচেয়ে শক্তিশালী ভূমিকম্পের ফলে. রিয়াক্টরগুলিতে কয়েকটি বিস্ফোরণ ঘটে, যার দরুণ তেজষ্ক্রিয়তার নিষ্ক্রমণ হয়. তেজষ্ক্রিয়তায় প্রভাবিত হয়েছে বায়ুমন্ডল, মৃত্তিকা এবং সমুদ্রের উপকূলবর্তী জল-এলাকা.