রাশিয়ার গোটা দূরপ্রাচ্যে আজ স্বাভাবিক তেজষ্ক্রিয়তার মান বজায় রয়েছে. বিপর্যয় নিরসন মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি জানিয়েছেন যে, তা মাপা হচ্ছে ৬১০টি স্থিতাবস্থার ও চলমান কেন্দ্রে, ব্যবহৃত হচ্ছে বিমান ও সামুদ্রিক জাহাজ. এর প্রাক্কালে, মঙ্গলবার, দূরপ্রাচ্যের ভূভাগে বিভিন্ন জায়গায় তেজষ্ক্রিয়তার মাত্রা ছিল ঘন্টায় ৬ থেকে ১৭ মাইক্রো রেন্টগেন, যা স্বাভাবিকের চেয়ে নিচে. জাপানের পাশ দিয়ে যাওয়া এবং রাশিয়ার প্রশান্ত মহাসাগরীয় উপকূলের বন্দরে ঢোকা জাহাজগুলিতেও জাপানের পারমাণবিক বিদ্যুত্শক্তি কেন্দ্রে দুর্ঘটনার দরুণ তেজষ্ক্রিয়তার চিহ্ন নেই.