"ফুকুসিমা – ১" পারমানবিক বিদ্যুত কেন্দ্রের দূর্ঘটনা গ্রস্থ রিয়্যাক্টর গুলি থেকে আর নতুন বিপদের সম্ভাবনা নেই ও নৈরাশ্য জনক পূর্বাভাস দেওয়া বন্ধ হয়েছে. এই বিষয়ে রাশিয়ার "রসঅ্যাটম" সংস্থার প্রধান সের্গেই কিরিয়েঙ্কো ঘোষণা করেছেন. তিনি অবশ্য নতুন করে হাইড্রোজেন থেকে বিস্ফোরণ ও তেজস্ক্রিয়তা ছড়ানোর বিষয়ে তা একেবারে শেষ হয়েছে বলে বলেন নি, তবে তাঁর কথামতো, "সবচেয়ে খারাপ অবস্থা পার হওয়া সম্ভব হয়েছে". কিরিয়েঙ্কোর কথামতো, জাপানের দূর্ঘটনা প্রমাণ করে দিয়েছে যে, পারমানবিক প্রকল্প পরিকল্পনা ও নির্মাণের সময়ে নিরাপত্তার বিষয়ে ব্যবস্থা আরও ভাল করার প্রয়োজন রয়েছে এবং আন্তর্জাতিক নিয়ন্ত্রণ সংস্থার অধিকার বৃদ্ধি করা দরকার আছে. ১৯৭০ এর দশকে টোকিও থেকে ২৫০ কিলোমিটার দূরে "ফুকুসিমা -১" পারমানবিক বিদ্যুত কেন্দ্র নির্মাণ করা হয়েছিল. ১১ই মার্চের ভূমিকম্পের ফলে এই কেন্দ্রের ছয়টি রিয়্যাক্টরের চারটি বিকল হয়ে গিয়েছে.