জাপানের “ফুকুসিমা” পারমাণবিক বিদ্যুত্শক্তি কেন্দ্র সমাহারে পরিস্থিতির অবনতি ঘটেছে. সাদা ধোঁয়ার কুন্ডলী উঠছে “ফুকুসিমা-১” পারমাণবিক বিদ্যুত্শক্তি কেন্দ্রের উপরে. বিশেষজ্ঞরা মনে করেন যে, সেখানে দ্বিতীয় রিয়াক্টর থেকে তেজষ্ক্রিয়তার নির্গমণ হয়েছে. দেশের নেতৃবৃন্দ বলেছেন যে, তা বায়ুমন্ডলের আরও তেজষ্ক্রিয় মলিনতা ঘটাতে পারে. বিদ্যুত্শক্তি কোম্পানি “টোকিও ইলেকট্রিক পাওয়ার” জানিয়েছে যে, কেন্দ্রের প্রথম ও দ্বিতীয় রিয়াক্টরে জ্বালানীর শলাকাগুলি আংশিকভাবে নষ্ট হয়েছে ঠান্ডা করার ব্যবস্থা অচল হওয়ার দরুণ. আন্তর্জাতিক সাত মাত্রার স্কেল অনুযায়ী “ফুকুসিমা-১” কেন্দ্রকে ছয় মাত্রার বিপদের মান দেওয়া হয়েছে. এদিকে টোকিওতে নতুন ভূমিকম্প হয়েছে ৬.৪ মাত্রার. জাপানের পারমাণবিক বিদ্যুত্শক্তি কেন্দ্রে দুর্ঘটনার পরিস্থিতি উপলক্ষে রাশিয়ার দূরপ্রাচ্যের শুল্ক সংস্থাগুলি সীমানায় তেজষ্ক্রিয়তার নিয়ন্ত্রণ বাড়িয়েছে. মনিটরিংয়ের পুরো সময়ে তেজষ্ক্রিয় মলিনতা প্রকটিত হয় নি.