রাশিয়ায় আজ থেকে বলবত্ হচ্ছে “পুলিশ সংক্রান্ত” ফেডারেল আইন. তার উদ্দেশ্য হল শৃঙ্খলারক্ষক ও নাগরিকদের মাঝে পারস্পরিক শরিকানার সম্পর্ক গড়ে তোলা. স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ব্যবস্থায় গড়ে তোলা হচ্ছে মূলনীতিগত নতুন বিন্যাস – পুলিশ, যার সারিতে অন্তর্ভুক্ত হওয়ার কথা এ বিভাগের শুধু শ্রেষ্ঠ কর্মীদের. এই প্রথম এমন পর্যায়ের আইনের খসড়া সামাজিক আলোচনার জন্য পেশ করা হয়েছিল. পুলিশের কাজের ফলপ্রসূতা মূল্যায়নের প্রধান উপাদান হিসেবে রাশিয়ার রাষ্ট্রনেতা উল্লেখ করেন সামাজিক মত. একটি গুরুত্বপূর্ণ নব-প্রবর্তন হল – তথাকথিত “মিরান্ডা নিয়ম”. আইন ও শৃঙ্খলারক্ষকরা এখন থেকে আটক করা ব্যক্তিকে ব্যাখ্যা করবেন তার অধিকার বিধানিক সহায্য লাভ সম্পর্কে, অনুবাদকের সেবা লাভ সম্পর্কে, আটক সম্বন্ধে নিকট আত্মীয় ব্যক্তিদের জানানো, ব্যাখ্যা দিতে অস্বীকারের অধিকার. স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সমস্ত কর্মীকে যোগ্যতার পুনর্প্রমাণ দিতে হবে, পুলিশের সারিতে যোগ দেবে শুধু প্রকৃত পেশাদাররা, যারা দূর্নীতিপরায়ণতা ও আইন লঙ্ঘনের সাথে যুক্ত নয় বলে প্রমাণিত হয়েছে.