মিসরের আর্মি কায়রো জাতীয় জাদুঘরের নিরাপত্তার দায়িত্ব বুঝে নিয়েছে.এই জাদুঘরে ফেরাউনের বিভিন্ন মূল্যবান উপকরন সংরক্ষিত আছে.রাষ্ট্রবিরোধী বিক্ষোভকারীরা মিসরের ক্ষমতাশীল রাজনৈতিক দলের প্রধান কার্যালয়ে আগুন ধরিয়ে দিলে তা পাশ্ববর্তী এই জাদুঘরে ছড়িয়ে পরার আশংকা দেখা দেয়.পরবর্তিতে জাদুঘরের নিরাপত্তায় আর্মিদের তলব করা হলে এবং তারা চারিদিক থেকে জাদুঘরকে ঘেরাও করে রাখে.এখনও সেখানে সেনা সদস্যসহ চারটি সাঁজোয়াযান পৌছায় নি.