কেলেঙ্কারী ঘটানো “উইকিলিক্স” ইন্টারনেট-সাইটের প্রতিষ্ঠাতা জুলিয়ান আস্সাঞ্জকে সুইডেনের কাছে সমর্পন করা সংক্রান্ত মামলার প্রথমিক শুনানী আজ শুরু হচ্ছে লন্ডনে. সুইডেনের অভিশংসক দপ্তর অস্ট্রেলিয়ার নাগরিক আস্সাঞ্জকে সমর্পন করার দাবি করছে সুইডেনের দুই মহিলাকে বলাত্কার করার অভিযোগে. আস্সাঞ্জের পক্ষ অভিযোগের রাজনৈতিকরণের উপর জোর দিচ্ছে এবং বলছে যে, তার নেতৃত্বাধীন সাইটের কার্যকলাপের জন্য তার বিরুদ্ধে এ অভিযান চালানো হচ্ছে. এ সাইটে মার্কিনী কূটনীতিজ্ঞদের গোপন পত্রালাপ প্রকাশিত হচ্ছে. এই “উইকিলিক্সের” প্রতিষ্ঠাতাকে গ্রেপ্তার করা হয় ২০১০ সালের ডিসেম্বরে, যখন সে স্বেচ্ছায় স্কটল্যান্ড ইয়ার্ডে আসে. আদালতের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী সে এক সপ্তাহ জেলে কাটায়, তবে তারপরে তাকে জামিনে মুক্ত করা হয়. তাকে সমর্পন সংক্রান্ত মুখ্য শুনানী নির্ধারিত হয়েছে ৭-৮ই ফেব্রুয়ারী.