রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দমিত্রি মেদভেদেভের ভারত সফরের সময় আন্তর্জাতিক প্রশ্নাবলি আলোচনার সময় একটি বিষয় হবে “ব্রিক” (ব্রেজিল, রাশিয়া, ভারত ও চীন) সঙ্ঘের তৃতীয় শীর্ষ সাক্ষাতের প্রস্তুতি এবং এ সঙ্ঘ প্রসারের সম্ভাবনা. এ সঙ্ঘের প্রথম পূর্ণপরিসরের শীর্ষ সাক্ষাত্ হয়েছিল ২০০৯ সালের ১৬ই জুন রাশিয়ার ইয়েকাতেরিনবুর্গে. তাঁর মতে, “ব্রিক সঙ্ঘের শীর্ষ সাক্ষাত্- এটি অপেক্ষাকৃত নতুন হলেও নিজের প্রথম পদক্ষেপ থেকে উচ্চ আন্তর্জাতিক মর্যাদা অর্জন করেছে”. রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি ব্যাখ্যা করে বলেন, “এতে আশ্চর্য়ের কিছু নেই, কারণ এ সঙ্ঘের দেশগুলিতে পড়ে পৃথিবীর ২৬ শতাংশ ভূভাগ, ৪২ শতাংশ জনসংখ্যা, এবং বিশ্বের মোট উত্পাদনের ১৪.৬ শতাংশ. বিগত কয়েক বছরে বিশ্ব অর্থনীতির বিকাশে “ব্রিক” সঙ্ঘের দেশগুলির অবদান ছিল ৫০ শতাংশের বেশি”. ভারতে বর্তমান সফরের সময় অন্যান্য আন্তর্জাতিক বিষয়ের মধ্যে মেদভেদেভ জরুরী আন্তর্জাতিক ও আঞ্চলিক সমস্যাবলির প্রতি মনোযোগ দিতে চান, বলেন প্রিখোদকো. তাঁর মূল্যায়ন অনুযায়ী, “দু দেশের অবস্থানের নৈকট্য আফগানিস্তান সম্পর্কে সক্রিয় পারস্পরিক ক্রিয়াকলাপ গড়ে তোলার সম্ভাবনা নিরূপণ করে, সেই সঙ্গে সন্ত্রাসবিরোধী নার্কোটিক বিরোধী বলয় গঠনের সম্ভাবনাও”. রাষ্ট্রপতির সহকারী এ সম্ভাবনা বাদ দেন নি যে, ইরানের পারমাণবিক কর্মসূচি সংক্রান্ত প্রশ্নও উথ্থাপিত হতে পারে.