বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় এবং দেশের পূর্বাঞ্চলে আরও কয়েকটি শহরে পুলিশের সাথে শ্রমিকদের কঠোর সঙ্ঘর্ষে অন্ততপক্ষে তিনজন নিহত এবং আরও ২০০ জন আহত হয়েছে. এ সঙ্ঘর্ষে অংশগ্রহণ করেছে প্রায় ৪ হাজার জন, যারা বস্ত্র ও পোষাক তৈরীর কারখানার কর্মী. এ কারখানাগুলি প্রধাণত জাপানী, চীনা ও দক্ষিণ কোরীয় কোম্পানির. কর্মীরা পারিশ্রমিক বৃদ্ধির এবং শ্রমাবস্থা উন্নতির দাবি করছে. মিছিলকারীদের বিরুদ্ধে পুলিশ লাঠি এবং রবারের গুলি ব্যবহার করেছে. এ অভিযানের ফলে দেশের প্রায় ৩০০ পোষাক তৈরীর কারখানা কাজ বন্ধ করেছে. এ শাখাটি দেশের অর্থনীতির বনিয়াদস্বরূপ.