উত্তর কোরিয়ার কর্তৃপক্ষ এই প্রথম দেশে কার্যকরী পারমাণবিক কর্মসূচির বিদ্যমানতা স্বীকার করেছে. জাপানের “কিওদো” সংবাদ এজেন্সি জানিয়েছে যে, পিয়ং ইয়ংয়ের “কয়েক হাজার” সেন্ট্রিফিউজ আছে, যা ইউরেনিয়ামের পরিশোধনে ব্যবহৃত হচ্ছে. সেই সঙ্গে খবরে জোর দিয়ে বলা হয়েছে য়ে, এ পারমাণবিক কর্মসূচি নিছক শান্তিপূর্ণ চরিত্রের এবং তা দেশের বিদ্যুত্শক্তির চাহিদা পুরণের জন্য নির্দেশিত. এদিকে উত্তর কোরিয়া দুবার পারমাণবিক অস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে, যা বিশ্ব জনসমাজকে তার পারমাণবিক কর্মসূচির শান্তিপূর্ণ চরিত্র সম্বন্ধে সন্দেহ প্রকাশ করতে বাধ্য করছে.