রুশ-ভারত সম্পর্কের সহযোগিতা প্রসারের জন্য বিপুল সুযোগ-সম্ভাবনা আছে. এ সম্বন্ধে আজ সাংবাদিকদের জানিয়েছেন উপ-প্রধানমন্ত্রী সের্গেই ইভানোভ, বাণিজ্যিক-অর্থনৈতিক, বৈজ্ঞানিক-প্রযুক্তিগত এবং সাংস্কৃতিক সহযোগিতা সংক্রান্ত আন্তঃসরকারী কমিশনের ষোড়শ বৈঠকের শেষ প্রটোকল স্বাক্ষরের পর. তিনি জোর দিয়ে বলেন, “ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সাথে আলাপ-আলোচনার ফলাফলের ভিত্তিতে আমরা এ সিদ্ধান্তে এসেছি যে, আমাদের বিপুল পরিমাণ অব্যবহৃত রিজার্ভ রয়েছে বিভিন্ন ক্ষেত্রে – উচ্চ প্রকৌশল, জ্বালানী ও বিদ্যুত্শক্তি, মহাকাশ অধ্যয়ন, কৃষি, ওষুধপত্রের ক্ষেত্রে, সম্মিলিত প্রতিষ্ঠান গঠনের ক্ষেত্রে”. সেই সঙ্গে তিনি উল্লেখ করেন যে, “পারস্পরিক লাভজনক সহযোগিতা প্রসারের সম্ভাবনা নেই এমন সব ক্ষেত্রের নাম করা সহজ হবে”. সেই সঙ্গে ইভানোভের কথায়, “পণ্য-আবর্তনের পরিমাণের আরও বৃদ্ধি নির্ভর করবে ব্যবসার সক্রিয়তার উপর এবং দু দেশের সরকারের সমর্থনের উপর. ভারতের এবং রাশিয়ার রাজনৈতিক মনোবল আছে”. সেই সঙ্গে ইভানোভ বলেন যে, “রুশ-ভারত সম্পর্কে আলাপ-আলোচনার জন্য “বন্ধ কোনো বিষয় নেই”.