ভারত সরকারের নেতা শ্রীমনমোহন সিং বলেছেন যে, তাঁর মন্ত্রিপরিষদ জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্যের ভবিষ্যত্ নিয়ে আলাপ-আলোচনা চালাতে প্রস্তুত এবং তিনি স্থানীয় অধিবাসীদের আহ্বান জানিয়েছেন প্রতিবাদ বন্ধ করতে, যার সঙ্গে সঙ্গে বলপ্রয়োগও চলছে. প্রধানমন্ত্রী বলেন যে, এতে কারুরই উপকার হচ্ছে না, এবং জোর দিয়ে বলেন যে, সংলাপ সম্ভব শুধু তাদের সাথে, যারা বলপ্রয়োগ ত্যাগ করবে. এ রাজ্যে পরিস্থিতি জটিল হয়ে ওঠে দু মাস আগে- প্রকৃতপক্ষে প্রতিদিন সেখানে সশস্ত্র সঙ্ঘর্ষ ঘটছে, যার ফলে ইতিমধ্যে ৫৭ জন নিহত হয়েছে. সংখ্যাধিক্য মুসলমান অধ্যুষিত কাশ্নীর ভারত ও পাকিস্তানের মাঝে বিভাজিত. ১৯৪৭ সালে স্বাধীনতা অর্জনের পর থেকে কাশ্মীর সমস্যা দুই প্রতিবেশী দেশের সম্পর্কে- মুখ্য সমস্যা.