শস্য রপ্তানির নিষেধ- রাশিয়ার জন্য বাধ্যতামূলক ব্যবস্থা, বলেছেন প্রথম উপ-প্রধানমন্ত্রী ভিক্তর জুবকোভ রস্সিইস্কায়া গাজেতা পত্রিকাকে প্রদত্ত ইন্টারভিউতে. তিনি বলেন, সরকারের এ সিদ্ধান্ত বাধ্যতামূলক জরুরী পরিস্থিতির ফল. প্রারম্ভিক হিসেব অনুযায়ী, অনাবৃষ্টি ও অগ্নিকান্ডের জন্য কৃষি উত্পাদনে ক্ষতির পরিমাণ ৩০০০ কোট্ রুবলের মতো, জানিয়েছে ইতার-তাস সংবাদ সংস্থা. উপ-প্রধানমন্ত্রী যোগ করে বলেন যে, শস্যের আমদানিকারীরা দেশের নেতৃবৃন্দের এ সিদ্ধান্ত উপলব্ধির সাথে গ্রহণ করেছে. তিনি বলেন, ভবিষ্যতে আন্তর্জাতিক শস্য বাজারে নিজের অগ্রস্থান বজায় রাখার পুরো ভিত্তি আছে রাশিয়ার. ১৫ই আগস্ট থেকে ২০১০ সালের শেষ পর্যন্ত রাশিয়া শস্যের রপ্তানিতে সাময়িক নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে. রাশিয়ার ইউরোপীয় অংশে এতদিন ধরে অসাধারণ গরম এবং অনাবৃষ্টির দরুণ প্রায় ১ কোটি ১০ লক্ষ হেক্টর জমিতে ফসল নষ্ট হয়েছে. শস্য ফলনের পূর্বাভাষ এক-তৃতীয়াংশ কমানো হয়েছে- ৬-৬.৫ কোটি টন পর্যন্ত. গত বছরে সংগ্রহ করা হয়েছিল ৯ কোটি ৭০ লক্ষ টন শস্য.